অনুশীলন করা প্রায় ছেড়ে দিয়েছেন নেইমার

নেইমারের দিনকাল ভালো যাচ্ছে না। চ্যাম্পিয়নস লিগ থেকে এবারও ছিটকে পড়েছে পিএসজি। এর দায় নেইমার ও লিওনেল মেসির ওপরই দিচ্ছেন পিএসজির সমর্থকেরা। গত সপ্তাহে ঘরের মাঠে বোর্দোর বিপক্ষে ম্যাচেই এটা টের পাইয়েছেন তাঁরা। ৩-০ গোলে জেতা ম্যাচেও দুয়ো শুনতে হয়েছে পিএসজির নির্দিষ্ট কিছু খেলোয়াড়কে। গোল করেও মুক্তি মেলেনি নেইমারের। গোল উদ্‌যাপনে সেটার ছাপ পড়েছিল।

এর প্রভাব নেইমারের ওপর পড়েছে। কদিন আগেই এক তথ্যচিত্রে ফুটবলজীবন ও ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে খোলামেলা আলোচনা করতে দেখা গেছে তাঁকে। সেখানেই বলেছিলেন, ক্রমবর্ধমান চাপে খেলার প্রতি ভালোবাসা হারিয়ে ফেলেন মাঝেমধ্যে। গত দুই সপ্তাহের ঘটনা নাকি এরই মধ্যে প্রভাব ফেলতে শুরু করেছে তাঁর ফুটবলে। ক্লাবের অনুশীলনে নাকি আর মন দিচ্ছেন না নেইমার।

সমর্থকদের ভালোবাসা পাচ্ছেন না নেইমার
সমর্থকদের ভালোবাসা পাচ্ছেন না নেইমার

দলবদলের রেকর্ড ভেঙে নেইমারকে নিয়েছে পিএসজি। বেতনের ক্ষেত্রে এ প্রজন্মের সেরা দুই খেলোয়াড়ের একজন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর চেয়ে বেশি বেতন দিয়েছে প্যারিসের ক্লাব। সে তুলনায় ক্লাবকে প্রতিদান দিতে পারেননি কিছুই। তাঁর সঙ্গী হতে এসে উল্টো তাঁকে ছাড়িয়ে গেছেন কিলিয়ান এমবাপ্পে। গত পাঁচ বছরে ক্লাবের সব ধরনের সাফল্য, চ্যাম্পিয়নস লিগে মনে রাখার মতো মুহূর্তে নেইমার নয়, এমবাপ্পেই ছিলেন। এ কারণেই রিয়াল মাদ্রিদের কাছে ছিটকে পড়ার পর গত সপ্তাহে সমর্থকদের কাছ থেকে দুয়ো শুনতে হয়নি এমবাপ্পেকে।

নেইমারের হয়েছে উল্টো। ম্যাচের শুরু থেকেই মেসি ও নেইমার—দুজনকেই দুয়ো দেওয়া হলেও ধীরে ধীরে মেসির ক্ষেত্রে ক্ষোভ কিছুটা কমে এসেছিল সমর্থকদের, যা ম্যাচে এক গোল করা নেইমারের ক্ষেত্রে হয়নি। ক্লাবে তাঁর অবস্থান এখন কেমন, সেটা বোঝা গেছে এ সপ্তাহে লিগ ম্যাচে। মোনাকোর মাঠে ৩-০ গোলে হেরে গেছে পিএসজি। অসুস্থতার কারণে মেসি ছিলেন না। ২-০ গোলে পিছিয়ে থাকা অবস্থায়ও নেইমারকে মাঠ থেকে তুলে নিয়েছেন কোচ মরিসিও পচেত্তিনো।

আরও পড়ুনঃ অঁরির প্রশ্ন

এর প্রভাব পড়েছে তাঁর মানসিকতায়। আরএমসি স্পোর্টসের সাংবাদিক দানিয়েল রাইওলো দাবি করেছেন, নেইমার একদম ভেঙে পড়েছেন। এল লারগেরোর বরাতে স্প্যানিশ পত্রিকা এএস জানিয়েছে, রাইওলো বলেছেন, ‘নেইমার এখন অনুশীলন বলতে গেলে করেই না। খুবই করুণ অবস্থায় আসে অনুশীলনে, প্রায় মাতাল অবস্থায়। এখন এমনই চলছে। পিএসজির ওপর প্রতিশোধ নেওয়ার মানসিকতা দেখা যাচ্ছে তাঁর মধ্যে। ক্লাব ও সতীর্থদের সঙ্গে সম্পর্ক একদম নষ্ট হয়ে গেছে।’

মোনাকো ম্যাচের পর এমবাপ্পে যা বলেছেন, তাতে ড্রেসিংরুমে যে ঝামেলা চলছে, সে ইঙ্গিত মিলেছিল, ‘আমরা যদি ৮-০ বা ৯-০ গোলেও জিততাম, মানুষ চ্যাম্পিয়নস লিগের কথাই ভাবত। আমাদের পেশাদার থাকতে হবে এবং একে অপরকে সম্মান করতে হবে। যে ভক্ত আমাদের সমর্থন দিচ্ছে, তাঁদের, অন্যদের ও আমাদের পরিবারকে সম্মান করতে হবে। যা করছেন (খেলা), তার প্রতি বিন্দুমাত্র সম্মান থাকলে আপনার নিজের প্রতিও সম্মান থাকা জরুরি।’

চ্যাম্পিয়নস লিগে পিএসজিকে সাফল্য এনে দিতে পারছেন না নেইমার
চ্যাম্পিয়নস লিগে পিএসজিকে সাফল্য এনে দিতে পারছেন না নেইমার 

মৌসুমের শুরুতেই পিএসজির সঙ্গে চুক্তি নবায়ন করেছেন নেইমার। ২০২৫ সাল পর্যন্ত প্যারিসে চুক্তিবদ্ধ। তবে রাইওলা বলছেন, ‘পিএসজির সমর্থকেরা ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ডকে আর ক্লাবে চান না। তাই সবার ভালোর জন্যই তাঁকে ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিতে বলছেন তাঁরা। পিএসজিন সমর্থকেরা নেইমারের নাটককে পাত্তা দেয় না। তাঁদের চিন্তা, তিনি ক্লাবের সর্বনাশ করছেন; কখন যাবেন তিনি। তাঁর নেটফ্লিক্স তথ্যচিত্রে যেমনটা বলা হয়েছে, তিনি ভালো নেই (মানসিকভাবে)। এতে তাঁদের কিছু যায় আসে না। চেক স্বাক্ষর করে তাঁকে চলে যেতে দেওয়াই ভালো। ক্লাবের ভেতরে থেকে অনেক ক্ষতি করছেন।’

তথ্য সূত্রঃ প্রথম আলো

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published.